জনতা ব্যাংকের চাকরির পরীক্ষায় প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগ


Dhaka
Published: 2020-02-19 04:07:26 BdST | Updated: 2020-10-22 21:37:20 BdST

জনতা ব্যাংকের টেলার নিয়োগের লিখিত পরীক্ষার ‘প্রশ্নপত্র ফাঁস’ হয়েছে বলে অভিযোগ এনে পরীক্ষা বাতিলের দাবি জানিয়েছেন চাকরিপ্রার্থীরা। মঙ্গলবার সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সন্ত্রাস বিরোধী রাজু ভাস্কর্যের সামনে এই দাবিতে ‘সম্মিলিত সাধারণ শিক্ষার্থী’র ব্যানারে মানববন্ধন করেন তারা।

মানববন্ধনে চাকরি প্রার্থীরা বলেন, গত ৭ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত জনতা ব্যাংকের নিয়েগ পরীক্ষায় প্রশ্নফাঁসের যে ঘটনা ঘটে এতে মেধার অবমূল্যায়ন হয়েছে। তাই এই পরীক্ষা বাতিল চাই। শুধু এই পরীক্ষায়ই নয়, অনেক পরীক্ষায় প্রভাবশালীরা দুর্নীতি করে বেকারদের সাথে প্রহসন করা হচ্ছে। এই প্রহসন যদি চলতে থাকে তাহলে বেকার সমাজ ঘরে বসে থাকবে না, রাস্তায় নামবে।

মানববন্ধনে আরও বলা হয়, মেধার মাধ্যমে নিয়োগপ্রাপ্তরা সবসময় সৎ থাকে কিন্তু যারা অসৎ পন্থায়, দুর্নীতি করে নিয়োগ পায় তাদেরকেই পরবর্তীতে বড় বড় দুর্নীতির সাথে যুক্ত থাকতে দেখা যায়। পরীক্ষা বাতিল না হওয়া পর্যন্ত তাদের আন্দোলন চলবে বলে জানান বক্তারা।

মানববন্ধনে তারা ‘ব্যাংক পরীক্ষায় দুর্নীতি মানি না মানবো না’, ‘জনতার টেলার রিটেন পরীক্ষা বাতিল চাই’, ‘প্রকৃত মেধার মূল্যায়ন চাই প্রশ্নপত্র ফাঁস বন্ধ চাই’ ইত্যাদি লেখা সম্বলিত প্ল্যাকার্ড প্রদর্শন করেন। এর আগে রাজধানীর শাহবাগে অবস্থিত গণগ্রন্থাগারের সামনে থেকে এক বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে তারা ভাস্কর্যের সামনে জড়ো হন।