গুজব ছড়ানোর অভিযোগে গ্রেপ্তার বুয়েটছাত্র রিমান্ডে


টাইমস প্রতিবেদক
Published: 2018-08-10 03:22:12 BdST | Updated: 2019-05-27 04:04:30 BdST

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন নিয়ে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে গ্রেপ্তার বুয়েটের এক ছাত্রকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য হেফাজতে পেয়েছে পুলিশ।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের মামলায় বুয়েটছাত্র দাইয়ান নাফিস প্রধানের পাশাপাশি একই অভিযোগের আরেক মামলায় অনলাইন পোর্টাল জুমবাংলা’র প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) ইউসুফ চৌধুরীকে বৃহস্পতিবার (০৯ আগস্ট) রিমান্ডে পাঠিয়েছে আদালত।

বুয়েটের মেকানিক্যাল বিভাগের ছাত্র দাইয়ানকে গত বুধবার ছাত্রলীগ নেতারা পুলিশে ধরিয়ে দেন। ওই দিনই পুলিশ গ্রেপ্তার করে ইউসুফকে।

তাদের দুটি মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে বৃহস্পতিবার ঢাকার হাকিম আদালতে হাজির করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের পরিদর্শক রফিকুল ইসলাম।

দাইয়ানকে রমনা থানায় ৫ অগাস্ট করা মামলায় এবং ইউসুফকে একই থানায় ১ অগাস্ট করা মামলায় রিমান্ডে নেওয়ার আবেদন করেন তিনি।

তদন্ত কর্মকর্তা অভিযোগ করেন, দাইয়ান ফেইসবুক লাইভ ও পোস্টসহ নানান কন্টেন্ট পোস্ট ও শেয়ার করে আন্দোলনকে সহিংস করতে ভূমিকা রেখেছিলেন। অন্যদিকে জুমবাংলা তথ্য- প্রমাণ ছাড়াই ভুয়া নিউজ প্রচার করে জনগণকে বিভ্রান্ত করছিল।

শুনানি শেষে মহানগর হাকিম ফাহ্দ বিন আমিন চৌধুরী বুয়েটছাত্র দাইয়ানকে চার দিন এবং জুমবাংলার ইউসুফকে এক দিন রিমান্ডে রাখার আদেশ দেন।

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মধ্যে গত ৪ অগাস্ট গুজব ছড়িয়ে ধানমণ্ডির আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে হামলা চালানোর প্ররোচনা দেওয়া হয়।

ফেইসবুকে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়েছে অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদকে। শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মধ্যে ‘উসকানিমূলক মিথ্যা’ প্রচারের অভিযোগে আলোকচিত্রী শহিদুল আলমকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

এদিকে আন্দোলনের মধ্যে সহিংসতার অভিযোগে বেসরকারি কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ২২ শিক্ষার্থী গ্রেপ্তার হয়ে এখন কারাগারে আছেন।

টিআই/ ১০ আগস্ট ২০১৮

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।