এবার সুফিয়া কামাল হলে প্রশাসন কর্তৃক ছাত্রীদের ‘হয়রানি’


ঢাবি টাইমস
Published: 2018-04-19 23:43:16 BdST | Updated: 2018-07-22 23:57:23 BdST

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কবি সুফিয়া কামাল হলের সাধারণ শিক্ষার্থীদের ডেকে নিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে হল প্রশাসনের বিরুদ্ধে। যদিও এমন অভিযোগ অস্বীকার করেছেন হল প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. সাবিতা রেজওয়ানা রহমান। আর অভিযোগটিকে পুরোই গুজব বললেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর থেকে হল প্রাধ্যক্ষ নিজেই সাধারণ ছাত্রীদের ডেকে হয়রানি করছেন বলে অভিযোগ করেন একাধিক ছাত্রী। প্রাধ্যক্ষ মোবাইল চেকসহ নানাভাবে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে বলেও অভিযোগ তাদের।

এছাড়াও হল শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ইফফাত জাহান এশার বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহারের পর থেকে আতঙ্ক বিরাজ করছে ছাত্রীদের মধ্যে। ছাত্রীরা জানান, আজ হল প্রশাসন ছাত্রীদের ডেকে নিয়ে হয়রানি করছেন। বাড়িতে ফোন দিয়ে অভিভাকদের সঙ্গে কথা বলছেন এবং হল থেকে বের করে দেয়ারও হুমকি দিয়েছেন প্রাধ্যক্ষ।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে ড. সাবিতা রেজওয়ানা বলেন, অনেক মেয়ে ফেক আইডির মাধ্যমে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হলের বিরুদ্ধে নানা গুজব ছড়াচ্ছে। তাই অনেককে ডেকে এনে মোবাইল চেক করা হয়েছে। আর কেউ যদি হল ছেড়ে কারো রিলেটিভের বাসায় যায় তাহলে কার কী করার আছে।

তবে কারও মোবাইলে সন্দেহজনক কিছু পেয়েছেন কিনা- জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি লাইনটি কেটে দেন। পরবর্তীতে কয়েকবার ফোন করা হলেও তিনি রিসিভ না করে মোবাইল ফোনটি বন্ধ করে দেন।

এ বিষয়ে ঢাবি উপাচার্য অধ্যাপক আখতারুজ্জামান বলেন, এগুলো গুজব। এ ধরনের কোনো ঘটনা ঘটেনি। বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে একটি গোষ্ঠী এসব গুজব ছড়াচ্ছে। এসব গুজবে কান দেয়া যাবে না।

বিদিবিএস 

 

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।