ঢাবি কর্তৃপক্ষ সহায়তা না করলেও সনজিতের সহায়তায় হাসপাতালে গেল ছাত্রী


ঢাবি টাইমস
Published: 2019-07-28 01:27:23 BdST | Updated: 2019-08-26 04:49:29 BdST

ঢাবি ছাত্রীকে হাসপাতালে নিতে সহায়তা করে এবার প্রশংসায় ভাসছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সঞ্জিত চন্দ্র দাস।

রোকেয়া হলের আবাসিক এক ছাত্রী মারাত্মক অসুস্থ্য ছিল, তাকে হাসপাতালে নিতে হবে, আবাসিক শিক্ষিকাকে (ফারহানা ফেরদৌসী) জানানো হলে তিনি দায়িত্ব নিতে পারবেন না বলে সাফ জানিয়ে দেন, জানান সাংবাদিক কবির কানন। 

''প্রক্টর স্যারকে জানানো হলে তিনি হাউস টিউটরদের বলতে বলেন।''

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সহায়তা না পেয়ে সনজিত চন্দ্র দাসের সহায়তায় ওই ছাত্রীকে ঢাকা মেডিকেলে নেওয়া হয়।

ছাত্রীর সহপাঠী ও ওই হলের আবাসিক ছাত্রীরা এমন অভিযোগ এনে এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। ওই ছাত্রীর নাম পুষ্পিতা চাম্বুগং। রবিবার রাত ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগী ছাত্রীর রুমমেট তিনু বলেন, আমি প্রক্টর স্যারকে ফোন দিলে উনি আবাসিক শিক্ষকদের ফোন দিতে বলেন। তারপর আমি ফেরদৌসি ম্যাডামকে ফোন দিলে তিনি রোগীর লোকাল গার্ডিয়ানকে ফোন দিতে বলেন। তারা কিছু করতে পারবেন না বলে জানান।

এ বিষয়ে রোকেয়া হলের আবাসিক শিক্ষিকা ফারহানা ফেরদৌসি বলেন, বিষয়টি তেমন কিছু না। রাতে হলের এক মেয়ে ফোন দিয়েছিল। ১৮-১৯ সেশনের শিক্ষার্থীদের জন্য দুজন শিক্ষিকা রয়েছে। তারেই একটা ব্যবস্থা নিবে। লোকাল গার্ডিয়ানের ব্যাপারে তিনি বলেন, এ ব্যাপারে তেমন কথা হয়নি। লোকাল গার্ডিয়ান কোথায় থেকে আসবে? আগেতো হলের হাউজ টিউটররা যাবেন।

নানান সময় বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত ও সমস্যায় পতিত হওয়া শিক্ষার্থীদের সহায়তায় বিভিন্ন সময় এগিয়ে আসতে দেখা গেছে ছাত্রলীগের বর্তমান শীর্ষ চার নেতাকে এই।

এদিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন হলে প্রায় শতাধিক শিক্ষার্থী ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।