রাকিব সিরাজীর উদ্যোগে বৃত্তি পেলো ঢাবির ৪৬ শিক্ষার্থী


Netrokona
Published: 2020-05-12 21:32:37 BdST | Updated: 2020-06-01 18:06:09 BdST

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী এস এম রাকিব সিরাজীর ব্যতিক্রমী এক উদ্যোগে গত ১৭ দিনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪৬ জনসহ মোট ৫২ জন শিক্ষার্থীকে নগদ ১ লক্ষ ১২ হাজার ৫০০ টাকা শিক্ষাবৃত্তি দেওয়া হয়েছে ।

জানা যায় ঢাকা ইউনিভার্সিটি ডিবেটিং সোসাইটির সাবেক এই সভাপতি তাঁর প্রতিষ্ঠিত সুকর্ম ফাউন্ডেশনের স্বেচ্ছাসেবকদের মাধ্যমে রমজানের শুরুতে চালু করে হ্যান্ড টু হ্যান্ড বিশেষ মেধাবৃত্তি প্রকল্প 'হাল ছেড়োনা বন্ধু'।

প্রকল্পটিতে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে থাকা মাঠ পর্যায়ের স্বেচ্ছাসেবকরা তাদের পরিচিত বন্ধু-বান্ধব, আত্মীয়-স্বজন ওও পরিচিতজনদের মধ্য থেকে দাতা(বৃত্তবান) ও বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকে গ্রহীতা(সংকটে পড়া শিক্ষার্থী) সংগ্রহের কাজ করছেন । আর এই দুই শ্রেণীর মাঝে মধ্যস্থতার কাজ করছে সুকর্ম ফাউন্ডেশনেরই আরেক দল অফিসিয়াল স্বেচ্ছাসেবক । এক হাজার শিক্ষার্থীকে বৃত্তি দেয়ার লক্ষ্য নিয়ে রমজান মাসের শুরুর দিকে এই প্রকল্প শুরু করে নবীন সংগঠন সুকর্ম ফাউন্ডেশন ।

এত অল্প সময়ে কোন পূর্ব প্রস্তুতি ছাড়াই কীভাবে এই কর্ম গতিশীলতা পেয়েছে ? জানতে চাইলে সুকর্ম ফাউন্ডেশনের সিলেট বিভাগীয় সমন্বয়ক ও প্রধান স্বেচ্ছাসেবক মোঃ মনির হোসাইন শিশির বলেন এর অন্যতম কারণ আমাদের কাজের ধরণ সম্পূর্ণ ব্যতিক্রম । আমরা এখানে নিজেরা কারো কাছ থেকে কোন অর্থ না নিয়ে শিক্ষার্থীর অ্যাকাউন্টে সরাসরি দাতার মাধ্যমেই পাঠিয়ে দিচ্ছি(হ্যান্ড টু হ্যান্ড)।

এতে দাতা সরাসরি সহায়তা করতে পেরে এক ধরণের বিশেষ তৃপ্তি অনুভব করেন । তাছাড়া টাকা কোথায় দিচ্ছি ,কাকে দিচ্ছি , কারা পাচ্ছে , কীভাবে পাচ্ছে এমন অনেক সংশয়পূর্ণ প্রশ্নের উত্তর দাতাদের খুঁজতে হয়না । ফলে বিষয়টি বুঝিয়ে বললে যেকোন বিত্তবান ব্যক্তি পাশে সংকটে থাকা শিক্ষার্থীদের দাঁড়ানোর আগ্রহ দেখান ।

আপনাদের ডোনার মূলত কারা?এমন প্রশ্নের জবাবে সুকর্ম ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা এস রাকিব সিরাজী বলেন অধিকাংশই দেশের বিভিন্ন প্রান্তের বিত্তবান মানুষেরা ।

তিনি বলেন আমি বিশ্ববিদ্যালয়ের যেসব ব্যক্তি বা সংগঠনের সাথে কাজ করেছি তাদের মধ্য থেকে বিশাল অংকের সহায়তা নেওয়ার একটা সুযোগ থাকলেও কাউকেই এখানে ডোনার বা সহায়তার জন্য সম্পৃক্ত করছিনা। কারণ ঐসব সংগঠন বা ব্যক্তি প্রত্যেকেই স্বতন্ত্র জায়গা থেকে উদ্যোগী হয়ে কাজ করছে এবং আমি নিজেও ঐসব উদ্যোগের সাথে সম্পৃক্ত । তাই আমরা চেষ্টা করছি ঐসব ব্যক্তি বা সংগঠনের বাইরে থাকা বহু মানুষকে শিক্ষার্থী সহায়তা কর্মে সম্পৃক্ত করতে।

উল্লেখ্য করোনা চলাকালীন সময়ে ঘরবন্দী হয়ে সংকটে পড়া বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে এক হাজার অদম্য মেধাবী শিক্ষার্থীকে বৃত্তি দেয়ার লক্ষ্যে সুকর্ম ফাউন্ডেশনের 'হাল ছেড়োনা বন্ধু' নামে হ্যান্ড টু হ্যান্ড মেধাবৃত্তি প্রকল্পটি ইতিমধ্যে দেশের অনেক মানুষের নজর কেড়েছে।