রেজিস্ট্রেশন ছাড়াই টিকা পাবেন মাদরাসা শিক্ষার্থীরা


Desk report | Published: 2021-12-22 23:56:26 BdST | Updated: 2022-08-12 21:29:14 BdST

সরকারি-বেসরকারি মাদরাসার ১২ থেকে ১৭ বছর বয়সী শিক্ষার্থীরা রেজিস্ট্রেশন ছাড়াই করোনা ভাইরাস প্রতিরোধী টিকা পাবেন। স্থানীয় প্রশাসনের টিকা দেওয়ার নির্ধারিত দিনে টিকাদান কেন্দ্রে গিয়ে নিজ নিজ জন্ম নিবন্ধন সনদ দেখিয়ে শিক্ষার্থীদের প্রথম ডোজের টিকা নিতে হবে। আর দ্বিতীয় ডোজের টিকা নেওয়ার আগে শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন করতে হবে।

বুধবার মাদরাসা শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে সব জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে বিষয়টি জানিয়ে চিঠি পাঠানো হয়েছে।

এতে অধিদপ্তর বলছে, সব মাদরাসায় অধ্যয়নরত ১২ থেকে ১৭ বছর বয়সী শিক্ষার্থীদের কোভিড-১৬ টিকা দেওয়ার জন্য সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এ কার্যক্রমকে আরও গতিশীল করতে এবং ভ্যাকসিনেশনের আওতা আরও সম্প্রসারিত করতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও আইসিটি বিভাগের যৌথ সিদ্ধান্ত অনুযায়ী রেজিস্ট্রেশনের পাশাপাশি রেজিস্ট্রেশন ছাড়া (এক্ষেত্রে শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন না) টিকা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। উল্লিখিত বয়সের শিক্ষার্থীরা নির্দিষ্ট দিনে নির্ধারিত টিকাদান কেন্দ্রে গিয়ে নিজ নিজ জন্ম নিবন্ধন সনদ দেখিয়ে করে প্রথম ডোজ টিকা গ্রহণ করবে। স্ব স্ব প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ বা সুপার বা ইবতেদাযয়ি প্রধান প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে দুই কপি টিকা কার্ডসহ প্রয়োজনীয় সংখ্যক শিক্ষকের তত্ত্বাবধানে নির্দিষ্ট দিনে জেলা শিক্ষা অফিসার কর্তৃক নির্ধারিত সংখ্যক শিক্ষার্থীকে নির্ধারিত টিকাদান কেন্দ্রে পাঠানো এবং সুশৃঙ্খলভাবে শিক্ষার্থীদেরকে টিকা গ্রহণ নিশ্চিত করবেন।

অধিদপ্তর আরও জানিয়েছে, শিক্ষার্থীদের দ্বিতীয় ডোজ টিকা গ্রহণের আগে তাদের টিকা গ্রহণ সংক্রান্ত রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন করতে হবে। তা না হলে তারা দ্বিতীয় ডোজ টিকা পাবেন কিন্তু টিকা সনদ পাবে না।

চিঠিতে বলা হয়েছে, জেলা শিক্ষা কর্মকর্তারা সংশ্লিষ্ট জেলার নির্বাচিত টিকা কেন্দ্র ছাড়াও টিকা দেওয়ার সুবিধা রয়েছে এ ধরনের আরও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নির্বাচন করে সংশ্লিষ্ট জেলার সিভিল সার্জনকে জানাবেন। বিদ্যমান টিকা কেন্দ্রের বাইরে আরও বেশি সংখ্যক কেন্দ্রে যাতে এ টিকা কার্যক্রমকে সম্প্রসারণ করা যায় সে লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় দ্রুত ব্যবস্থা নেবেন। এ ক্ষেত্রে জেলা প্রশাসক, সিভিল সার্জান ও আঞ্চলিক পরিচালকদের সঙ্গে সমন্বয় করে টিকাদান কর্মসূচি প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন করবেন।