হল খুলে দেয়ার দাবিতে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের মানববন্ধন


ঢাকা | Published: 2021-02-20 17:29:47 BdST | Updated: 2021-03-02 04:22:23 BdST

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর ন্যাক্কারজনক সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদ ও হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তিসহ দেশের সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হল খুলে দেয়ার দাবিতে আজ ২০ ফেব্রুয়ারী শনিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ।

বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ, কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক মো: আল মামুন এর সঞ্চালনায় উক্ত মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ কর্মসূচীতে সভাপতিত্ব করেন আমিনুল ইসলাম বুলবুল। আরোও বক্তব্য রাখেন সংগঠনের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক শুভ্র মাহমুদ, আইন বিষয়ক সম্পাদক এইউজেড প্রিন্স, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি সনেট মাহমুদসহ প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ, কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক মোঃ আল মামুন বলেন, "বীর মুক্তিযোদ্ধা পরিবারদের অধিকার আদায়ের আন্দোলন ও সংগ্রামের পাশাপাশি সমাজ ও রাষ্ট্রের সকল অনিয়ম-অসঙ্গতির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ। এর ধারাবাহিকতায় সম্প্রতি বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর ন্যাক্কারজনক সন্ত্রাসী হামলায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ। উক্ত সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়ার দাবি জানাচ্ছি। কিছুদিন আগে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে প্রায় ৩০জন শিক্ষার্থীকে রক্তাক্ত করা হয়েছে। গতকাল জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালিয়ে প্রায় ২০ জন শিক্ষার্থীকে আহত করা হয়েছে যা কখনোই কাম্য নয়। বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলাকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করলে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের ওপর এরকম ন্যাক্কারজনক সন্ত্রাসী হামলার পুনরাবৃত্তি কখনোই ঘটতো না আমরা মনে করি। শিক্ষার্থীদের ওপর সন্ত্রাসী হামলা কখনোই মেনে নিবে না বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ।

আল মামুন আরোও বলেন, "শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা দেয়া এবং তাদের বিপদে-আপদে পাশে দাঁড়ানো বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের নৈতিক দায়িত্ব। কিন্তু আমরা লক্ষ্য করলাম জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ও বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সেই দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ হয়েছেন। শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের দায়িত্বহীন বক্তব্য ছাত্রসমাজকে চরমভাবে ব্যথিত করেছে। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরকে তাঁর দায়িত্বহীন বক্তব্য অবশ্যই প্রত্যাহার করতে হবে। শিক্ষার্থীদের ওপর নগ্ন হামলার ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের দায়িত্বহীন বক্তব্য ও নীরবতার বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ। আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে দুই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতার করতে হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলগুলো বন্ধ থাকার কারণেই এধরণের হামলার ঘটনাগুলো ঘটছে। অবিলম্বে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের আবাসিক হলগুলো খুলে দিয়ে শিক্ষা কার্যক্রম শুরু করার দাবি জানাচ্ছি। অন্যথায় বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ আরোও কঠোর কর্মসূচী ঘোষণা করবে।"

বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ এর তিন দফা দাবিসমূহ:

১। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ও বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার ঘটনায় জড়িত সন্ত্রাসীদের দ্রুত গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে।

২। আহত শিক্ষার্থীদের প্রয়োজনীয় সুচিকিৎসা ও ক্ষতিপূরণের ব্যবস্থা করতে হবে।

৩। স্বাস্থ্যবিধি মেনে অতি দ্রুত দেশের সকল বিশ্ববিদ্যালয় খুলে দিয়ে শিক্ষা কার্যক্রম শুরু করতে হবে।