প্রতিষ্ঠান ছাত্র রাজনীতি নিষিদ্ধ করতে পারে না : ছাত্রদল


Desk report | Published: 2022-09-14 16:57:07 BdST | Updated: 2022-10-05 19:00:31 BdST

ছাত্র রাজনীতির বিপক্ষে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের অবস্থানের প্রতিবাদ জানিয়েছে ছাত্রদল।

বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ প্রতিবাদ জানানো হয়।

 

লিখিত বক্তব্যে এম রাজিবুল ইসলাম তালুকদার বিন্দু বলেন, ১৯৯২ সালে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় যাত্রা শুরু হয় ইউজিসির নীতিমালায়। এ নীতিমালায় ছাত্র সংগঠন করা যাবে না এমন কিছু বলা হয়নি এবং ২০১০ সালে ইউজিসির সেই নীতিমালায় পরিবর্তন আসে। সেখানেও ছাত্র সংগঠন করা যাবে না এমন কিছু বলা নেই।

তিনি বলেন, বাহান্নর ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধ এবং নব্বইয়ের স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলন পর্যন্ত ছাত্ররাজনীতির গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস থাকলেও ক্রিয়াশীল ছাত্ররাজনীতি ধ্বংসের লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে এক শ্রেণির নতজানু প্রভুভক্ত, আত্মকেন্দ্রিক গোষ্ঠী।

তিনি আরও বলেন, বর্তমান প্রজন্ম রাজনৈতিকভাবে অসচেতন হলে, দেশে দুর্নীতি, লুটপাট, ভয়ের সংস্কৃতি, বিচারহীনতা বৃদ্ধির পাশাপাশি, নতুন নেতৃত্ব সৃষ্টির অভাবে দেশ একসময় বিদেশি প্রভু নির্ভর অকার্যকর রাষ্ট্রে পরিণত হবে। এছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসগুলোতে প্রগতিশীল রাজনৈতিক দর্শনের চর্চা না হলে, এক ধরনের মৌলবাদী সন্ত্রাসী সংগঠনের উত্থান হওয়ারও ঝুঁকি রয়ে যায়। তাই বৈশ্বিক রাজনীতিতে টিকে থেকে দেশকে এগিয়ে নিতে হলে মেধাভিত্তিক ছাত্ররাজনীতি চর্চার বিকল্প নেই। আর মেধাবী নেতৃত্ব বিশ্ববিদ্যালয় থেকেই উঠে আসতে হবে।

 

এম রাজিবুল ইসলাম তালুকদার বিন্দু বলেন, রাজনীতি করা ব্যক্তির সাংবিধানিক অধিকার। কোনো প্রতিষ্ঠান সেটি নিষিদ্ধ করতে পারে না। আমাদের জাতি হিসেবে যত অর্জন তার প্রতিটিতে ছাত্র রাজনীতি বিশেষ অবদান রেখেছে। বিশেষ করে শিক্ষার্থীরা আমাদের দেশের জন্য ভবিষ্যৎ নেতৃত্ব হিসেবে গড়ে উঠবে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি কাজী রওনকুল ইসলাম শ্রাবণ, সাধারণ সম্পাদক সাইফ মাহমুদ জুয়েল, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রদলের সভাপতি মো. আবু হোরায়রা এবং সাধারণ সম্পাদক এম রাজিবুল ইসলাম তালুকদার বিন্দু।