ছাত্র ইউনিয়নের দুই নেতাকে বহিষ্কারের প্রতিবাদে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মশাল মিছিল


CU Correspondent | Published: 2024-03-01 10:18:01 BdST | Updated: 2024-04-22 06:49:27 BdST

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ইউনিয়নের দুই নেতার বহিষ্কার আদেশ প্রত্যাহারের দাবিতে মশাল মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের গণতান্ত্রিক ছাত্র জোটের নেতা কর্মীরা।

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যা সাতটায় ক্যাম্পাসের গোলচত্বর থেকে এ মিছিল শুরু হয়। পরে শহীদ মিনারের সামনে এসে শেষ হয়৷ সেখানে নেতাকর্মীরা ‘গ্রাফিতি আঁকা অপরাধ নয়’; জাহাঙ্গীরনগেরর ছাত্র নেতাদের বহিষ্কার আদেশ প্রত্যাহার কর' ইত্যাদি স্লোগান সম্বলিত প্ল্যাকার্ড হাতে নিয়ে সমাবেশ করেন।

বামধারার আট ছাত্র সংগঠন নিয়ে ২০২২ সালের ৩০ নভেম্বর গণতান্ত্রিক ছাত্র জোট আত্মপ্রকাশ করে। এ জোটে বর্তমানে সাতটি সংগঠন রয়েছে। এগুলো হলো ছাত্র ইউনিয়নের একাংশ, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট (মার্কসবাদী) বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী, গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিল, ছাত্র ফেডারেশন (জাতীয় মুক্তি কাউন্সিল), বিপ্লবী ছাত্র-যুব আন্দোলন এবং বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ (পিসিপি)।

আজকের সমাবেশ ও মশাল মিছিলে তিন সংগঠনের নেতাকর্মীরা অংশ নেন। গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিলের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সংগঠক ধ্রুব বড়ুয়ার সঞ্চালনায় এতে বক্তব্য দেন বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয় শাখার আহ্বায়ক জশদ জাকির ও পিসিপির বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি রোনাল চাকমা।

এতে বক্তারা বলেন, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন মতামত প্রকাশের গণতান্ত্রিক অধিকারকে সংকুচিত করেছে। নানান অযৌক্তিক অজুহাত দেখিয়ে, কারণ দর্শানোর নোটিশ না দিয়ে ও নিয়মের তোয়াক্কা না করে ছাত্রনেতাদের বহিষ্কার করা হয়েছে। এটা গণতন্ত্রহীনতার সুস্পষ্ট নিদর্শন।

বক্তারা বলেন, আবেগ দিয়ে গণতন্ত্র চলে না, গণতন্ত্র চলে অবাধ মতপ্রকাশের স্বাধীনতা ও জনগণের মতামত গ্রহণের প্রক্রিয়াকে বিকশিত করার মাধ্যমে। এই প্রক্রিয়া গড়ে তুলতে আমাদের রাষ্ট্র ও বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ব্যর্থ হয়েছে।ক্যাম্পাসে গণতান্ত্রিক পরিবেশ নিশ্চিত করে ওই দুই ছাত্র নেতার বহিষ্কার আদেশ প্রত্যাহার করতে হবে।

গত ২০ ফেব্রুয়ারি জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন কলাভবনের দেয়ালে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দেয়ালচিত্র মুছে ধর্ষণবিরোধী দেয়ালচিত্র আঁকার অভিযোগে ছাত্র ইউনিয়নের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার দুই নেতাকে বহিষ্কার করে কর্তৃপক্ষ। ওই দুই নেতা হলেন বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি অমর্ত্য রায় ও সাধারণ সম্পাদক ঋদ্ধ অনিন্দ্য গাঙ্গুলী। তাঁদের এক বছর মেয়াদে বহিষ্কার করা হয়। পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন তাঁদের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগও দিয়েছে।